ব্রেকিং

6/recent/ticker-posts

Header Ads Widget

'মা’ উড়ালপুলের কাজ শুরু বাম আমলে, শেষ দিদিমণির সময়ে, মা- বিতর্ক নিয়ে বললেন দিলীপ

দিলীপ মমতা

নিউজ ডেস্ক: বছর ঘুরলেই উত্তরপ্রদেশে ((Uttar Pradesh) বিধানসভা ভোট। ২০২৪ সালের লোকসভা ভোটের আগে বিজেপির (BJP)  লিটমাস টেস্টও বটে। অথচ একাধিক কারণে সে রাজ্যে বেজায় চাপে যোগী আদিত্যনাথ নেতৃত্বাধীন সরকার। সরকারের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করতে রবিবার ইংরেজি ভাষায় মুদ্রিত এক সংবাদপত্রে ‘ট্রান্সফরমিং উত্তরপ্রদেশ’ শীর্ষক একটি বিজ্ঞাপন প্রকাশিত হয়। সেই বিজ্ঞাপন দেখে সকলের চক্ষু চড়কগাছ। চাপে পড়েছে বিজেপি। উত্তরপ্রদেশের যোগী সরকারের বিজ্ঞাপনে কলকাতার ‘মা’ উড়ালপুলের ছবি ব্যবহার নিয়ে বিতর্ক দানা বেঁধেছে।

এরই মধ্যে মা উড়ালপুল বিতর্কে বাম আমলের কথা স্মরণ বিজেপি-র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের। ওই উড়ালপুল নির্মাণের কৃতিত্ব বামেদেরই দিলেন তিনি। ‘মা’ উড়ালপুলের ছবি ব্যবহার নিয়ে  ইতিমধ্যেই তথ্যের অধিকার আইনের (আরটিআই) সাহায্য নিয়েছে তৃণমূল। 

এই প্রসঙ্গেই মঙ্গলবার খড়্গপুরে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘‘আরটিআই করার কী আছে? সবাই জানে ওটা। কে অস্বীকার করেছে? যে সংস্থা বিজ্ঞাপন দিয়েছে এবং যে পত্রিকা তারা ভুল স্বীকার করে নিয়েছে। ব্যস ঝামেলা মিটে গেল। কেউ বলেনি আমি বানিয়েছি এটা। তৃণমূলও এটা বানায়নি। বামপন্থীদের আমলেই শুরু হয়েছিল। দিদিমণির সময় শেষ হয়েছে। উনি নিজের ছবি তুলে নিয়েছেন। উনি ছবি তোলেন, ছবি লাগান। উনি কেন্দ্রীয় প্রকল্পের নাম বদল করে নিজে নাম করেন। নতুন কিছু করেন না। সেই জন্য ওদের অত কষ্ট পাওয়ার কোনও কারণ নেই।’’

তবে দিলীপকে নিশানা করে তৃণমূলের পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার সভাপতি সুজয় হাজরা পাল্টা বলেন, ‘‘পরিকাঠামোগত উন্নয়ন নিয়ে ওঁর ধ্যানধারণা নেই। ওঁর উচিত আরটিআই করে জেনে নেওয়া কার আমলে কতটা কাজ হয়েছে মা উড়ালপুলের। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কৃতিত্ব মেনে নিতে পারছেন না বলেই বামফ্রন্টকে কৃতিত্ব দেওয়ার চেষ্টা করছেন। ওই ছবি ব্যবহার করেই প্রমাণ করেছে এ রাজ্যের প্রকৃত উন্নয়নের ধারা।’’