Breaking News
Home / পলিটিক্স / রোহিঙ্গা মুসলিমদের আশ্রয় দিয়ে ভোটব্যাঙ্ক হিসেবে ব্যবহার করতে NRC বিরোধিতা করছে তৃণমূল: কৈলাশ বিজয়বর্গীয়

রোহিঙ্গা মুসলিমদের আশ্রয় দিয়ে ভোটব্যাঙ্ক হিসেবে ব্যবহার করতে NRC বিরোধিতা করছে তৃণমূল: কৈলাশ বিজয়বর্গীয়

বিশ্ব বার্তা নিউজ পোর্টাল: দিন কয়েক আগেই অসমে জাতীয় নাগরিকপঞ্জীর চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। এনআরসির তীব্র বিরোধিতা করেছে তৃণমূল কংগ্রেস। এই পরিস্থিতিতে বুধবার বিজেপি নেতা কৈলাশ বিজয়বর্গীয় অভিযোগ করলেন, রোহিঙ্গা মুসলিমদের আশ্রয় দিয়ে তাঁদের ভোটব্যাঙ্ক হিসেবে ব্যবহার এবং বিজেপি কর্মীদের মারধর করার জন্যই এনআরসির বিরোধিতা করছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

* গেরুয়া শিবির পর্যবেক্ষকের কিছু প্রশ্ন:

1. কেন, অনুপ্রবেশকারীদের তাড়াতে করা এনআরসির বিরোধিতা করছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়?
2. তাঁর বিরোধিতার কারণ কী?
3. কারণটা কি ভোটব্যাঙ্ক রাজনীতি?
4. বাংলাদেশী এবং রোহিঙ্গা মুসলিমদের আশ্রয় দিতে চাইছে কেন তৃণমূল কংগ্রেস সরকার?

শ্যামবাজারের একটি সভায় কৈলাশ বিজয়বর্গীয় আরও বলেন, “তাদের আশ্রয় দেওয়া হচ্ছে, যাতে তাদের ভোটব্যাঙ্ক হিসেবেও ব্যবহার করা যায়, আবার রাজ্যের বিজেপি কর্মীদের মারধর এবং হত্যা করা যায়”। এনআরসির মাধ্যমে নিজের দেশেই প্রকৃত ভারতীয় নাগরিকদের উদ্বাস্তু বানানো হয়েছে বলে অভিযোগ তুলেছে তৃণমূল কংগ্রেস, পাশাপাশি এএনআরসির বিরোধিতায় রাজ্যজুড়ে প্রতিবাদের ডাক দিয়েছে জোড়াফুল শিবির। রবিবার বিজেপি নেতা অর্জুন সিং-এর ওপর হামলার ঘটনার প্রসঙ্গ তুলে বিজেপি নেতা বলেন, “তাঁকে হত্যা করার ছক কষেছিল তৃণমূল কংগ্রেস। তবে তারা ব্যর্থ হয়েছে। আমি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে সতর্ক করে দিতে চাই যে, যদি অর্জুন সিংকে হত্যা করা হত, তাহলে তাঁর সরকার শেষ হয়ে যেত”। তাহলে কি সরাসরি হুমকির বার্তা পাঠাচ্ছে গেরুয়া দল?

এর আগে অর্জুন সিং দাবি করেন যে, তাঁর লোকসভা কেন্দ্রের একটি জায়গায় “শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ” করার সময়, তাঁর ওপর আঘাত করেন ব্যারাকপুরের পুলিশ কমিশমার মনোজ বার্মা, ফলে মাথায় ক্ষত সৃষ্টি হয় তাঁর। যদিও পুলিশের তরফে দাবি করা হয়, নিজের দলের কর্মীদের ইট ছোঁড়াছুঁড়িতেই আহত হয়েছেন অর্জুন সিং। রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে তৃণমূল কর্মীদের বিরুদ্ধে, তাদের দলীয় নেতা, কর্মীদের ওপর হামলার অভিযোগ তুলে তিনদিন প্রতিবাদ বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে রাজ্য বিজেপি। কৈলাশ বিজয়বর্গীয়ের অভিযোগ, নিজেদের “রাজনৈতিক স্বার্থ চরিতার্থ” করতে এবং বিরোধীদের মুখ বন্ধ করতে পুলিশ ও প্রশাসনকে ব্যবহার করছে তৃণমূল কংগ্রেস।

কৈলাশ বিজয়বর্গীয় বলেন, “বিজেপি যেদিন ক্ষমতায় আসবে, সেদিন শুধুমাত্র আমাদের কথাই শুনতে হবে পুলিশকে”।

বাংলাতে গেরুয়া দলের সরকার গঠন হলে তারা কি ‘জোর যার মুল্লুক তার’ বা প্রতিশোধের রাজনীতি শুরু করবে?? এটাই এখন দেখবার বিষয়।।।

Check Also

Braking News: আবার পিছিয়ে গেল এসএসসির উচ্চ প্রাথমিক স্তরের শিক্ষক নিয়োগের রায়দান, পরবর্তী শুনানি ২৬ সেপ্টেম্বর

বিশ্ব বার্তা নিউজ পোর্টাল: আবার পিছিয়ে গেল গুরুত্বপূর্ণ টেট মামলার রায় দান। আজকের এই রায়ের …

জেনারেল ডিগ্রী পাঠ্যক্রমে আমূল পরিবর্তন, স্কুলের মতো কলেজেও চালু হতে চলেছে ইউনিট টেস্ট!

বিশ্ব বার্তা: জেনারেল ডিগ্রী কোর্সের পাঠ্যক্রম আমূল পরিবর্তন হতে পারে। জেনারেল ডিগ্রী কোর্সের শিক্ষার্থীদের শিগগিরই …

রহস্যময় প্রাচীণ বাড়ি (অষ্টম পর্ব) – এন.কে.মণ্ডল

অষ্টম পর্ব….                 বিলুও কমলের পিছুপিছু গেলো। কাকাবাবু …

আগামী কাল আপারের রায় দান, আদালতের দিকে তাকিয়ে হবু শিক্ষকেরা!

স্কুল সার্ভিস কমিশন আপার প্রাইমারীতে নিয়োগ

ফিটমেন্ট ফ্যাক্টর সহ একাধিক দাবিতে আগামী ২৩শে সেপ্টেম্বর নবান্ন ঘেরাওয়ের ডাক দিল WBPTTA

বিশ্ব বার্তা: দীর্ঘ বঞ্চনা ও প্রতিশ্রুতি রক্ষা না করার অভিযোগ আগামী ২৩শে সেপ্টেম্বর নবান্ন অভিযানের …

Railways RRB NTPC 2019: ৩৫,২০৮ শূন্যপদের জন্য ১.২৬ কোটিরও বেশি আবেদনকারী

বিশ্ব বার্তা: রেলের এনটিপিসি (নন-টেকনিকাল পপুলার বিভাগ) পদে মোট ৩৫,২০৮ টি শূন্যপদ পূরণের জন্য রেলওয়ে …

সিনিয়র প্রাথমিক শিক্ষকদের প্রবল বেতন বঞ্চনা, তীব্র আন্দোলনে নামার হুঁশিয়ারি!

বিশ্ব বার্তা: দীর্ঘ বেতন বঞ্চনার অভিযোগে প্রাথমিক শিক্ষকদের লাগাতার ১৫ দিনের অনশন কর্মসূচির জেরে কার্যত …