Breaking News
Home / প্রযুক্তি / প্রতিরক্ষা ব্যবস্থায় জোর! ইজরায়েলের থেকে আসছে আরও ১০০টি বালাকোট ‘স্পাইস’ বোমা

প্রতিরক্ষা ব্যবস্থায় জোর! ইজরায়েলের থেকে আসছে আরও ১০০টি বালাকোট ‘স্পাইস’ বোমা

বিশ্ব বার্তা নিউজ পোর্টাল: লোকসভা ভোটে বিপুল জয় পেয়ে টানা দ্বিতীয়বার ক্ষমতার মসনদে বসেছেন নরেন্দ্র মোদি। এবার ভারতীয় প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাকে আরও মজবুত চাইছেন তিনি। ফলে ইজরায়েলের সঙ্গে একটি ৩০০ কোটি চুক্তি সই করতে চলেছে ভারত। এই চুক্তি বাস্তবায়ন হলে ভারতকে আরও ১০০টি স্পাইস-২০০০ সিরিজের বোমা সরবরাহ করবে ইজরায়েল। বালাকোটে এই স্পাইস-২০০০ সিরিজের বোমাই ব্যাবহার করেছিল ভারতীয় বায়ুসেনা। এর কার্যকারিতা দেখে ভারতীয় বায়ুসেনা আরও ১০০টি একই ধরণের বোমা চেয়ে পাঠাল ভারত। 

কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের দুই শীর্ষ আধিকারিক সূত্রে এই তথ্য জেনেছে সংবাদমাধ্যমগুলি। এই অত্যাধুইক বোমাগুলি ক্রয় করতে ইজরায়েলের ‘রাফাল অ্যাডভান্স সিস্টেম ম্যানুফ্যাকচারার’ কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি করা হচ্ছে। ‘এনডিএ-২’ সরকার ক্ষমতায় আসার পর প্রথমবারের মত অন্য কোনও দেশের সঙ্গে বড় ধরণের প্রতিরক্ষা চুক্তি করতে চলেছে ভারত। কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের ওই শীর্ষ কর্তা আরও জানিয়েছেন, চলতি বছরের শেষেই ভারতের হাতে চলে আসবে ১০০টি স্পাইস বোমা। ফলে ভারতের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা আরও জোরদার হবে। শত্রুর ঘরে ঢুকে আক্রমণ চালাতে পারবে ভারত। কোনো যুদ্ধবিমান থেকে ছোড়া হলে এই বোমাগুলি কমপক্ষে ৬০ কিলোমিটার পর্যন্ত দূরের লক্ষ্যবস্তুতে সঠিক নিশানায় আঘাত হানতে পারবে।

Check Also

সাজানো ভণ্ডামি, পশ্চিমবঙ্গে গণতন্ত্রের সঙ্গে আপনি বর্বরতা করেছেন, মুখ্যমন্ত্রীকে মুকুল রায়

বেশ কিছুদিন ধরেই রাজ্যের শাসকদল জোর দিয়েছে জন সংযোগ কর্মসূচি। পোশাকি নাম দেওয়া হয়েছে দিদিকে বলো কর্মসূচি। এই কর্মসূচি উপলক্ষেই গত বুধবার দিঘার দত্তপুরে যান মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। সেখানে দীঘর উন্নয়নের জন্য বেশ কিছু প্রকল্প ঘোষণা করেন। এরপর বাড়ি বাড়ি ঢুকে সাধারণ মানুষের অভাব-অভিযোগ শোনেন তিনি। যেতে যেতেই রাস্তার পাশে একটি চায়ের দোকানে ঢুকে নিজে হাতে চা বানান মুখ্যমন্ত্রী। এরপর তা পরিবেশনও করেন। এই ঘটনাকে জীবনের ছোটো ছোটো আনন্দদায়ক মুহূর্ত হিসাবেই অভিহিত করেছেন মুখ্যমন্ত্রী।

পদোন্নতির মাধ্যমে শিক্ষক নেওয়া হলে, আদৌ কি যোগ্য প্রার্থীরা প্রধান শিক্ষক হতে পারবেন? উঠছে প্রশ্ন!

এসএসসির মাধ্যমে সহ শিক্ষক নিয়োগে বারে বারে উঠেছে অভিযোগ। কখনো বা এনসিটির রুলস না মানা আবার কখনো বা যোগ্য প্রার্থীকে বাদ দিয়ে অযোগ্য প্রার্থীকে মেধা তালিকায় জায়গা করে দেওয়া। শুধুই যে সহ শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে এমন অভিযোগ আছে তা নয়, প্রধান শিক্ষক নিয়োগ নিয়েও উঠেছে একাধিক অভিযোগ। এসএসসির বিরুদ্ধে অভিযোগ জানিয়ে আদালতে মামলা দায়ের হয়েছেও প্রচুর। ফলে রাজ্যের স্কুল গুলিতে প্রধান শিক্ষক নিয়োগ বারেবারে বাধাপ্রাপ্ত হয়েছে।

এক দেশ, এক পরিবার, এক সন্তান, আইন করে চালু করা উচিত: বিজেপির শরিক নেতা

এক দেশ, এক পরিবার, এক সন্তান, আইন করে চালু করা উচিত

দীঘায় চলবে সি প্লেন, তৈরি হবে পুরীর মত জগন্নাথ দেবের মন্দির: মমতা ব্যানার্জী

দীঘা

সরকারের অনৈতিক সিদ্ধান্তে বিরুদ্ধে অবস্থান বিক্ষোভ শুরু রাজ্যের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে

সরকারের অনৈতিক সিদ্ধান্তে বিরুদ্ধে অবস্থান বিক্ষোভ শুরু রাজ্যের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে

অতিথি অধ্যাপকদের স্থায়ীকরণে ইউজিসির নিয়মকে লঙ্ঘন, আদালতের পথে চাকুরী প্রার্থীদের একাংশ!

অতিথি অধ্যাপকদের স্থায়ীকরণে ইউজিসির নিয়মকে লঙ্ঘন, আদালতের পথে চাকুরী প্রার্থীদের একাংশ!

কলেজের অতিথি অধ্যাপকদের ধামাকাদার বেতন বৃদ্ধি

কলেজের অতিথি অধ্যাপকদের ধামাকাদার বেতন বৃদ্ধি