Breaking News
Home / কোলকাতা / চাকরির স্থায়িত্ব ও নির্দিষ্ট বেতন কাঠামোর দাবিতে ১৮ই জুলাই আবার পথে নামছেন রাজ্যের কয়েক হাজার অতিথি অধ্যাপকরা

চাকরির স্থায়িত্ব ও নির্দিষ্ট বেতন কাঠামোর দাবিতে ১৮ই জুলাই আবার পথে নামছেন রাজ্যের কয়েক হাজার অতিথি অধ্যাপকরা

বিশ্ব বার্তা নিউজ পোর্টাল: ৬০ বছর পর্যন্ত চাকরির স্থায়িত্ব ও স্থায়ী বেতন কাঠামোর দাবিতে ফের পথে নামতে চলেছেন রাজ্যের কয়েক হাজার অতিথি অধ্যাপকরা। এর আগে একই দাবি নিয়ে সমবেত হয়ে ৯জুন হাজরার মোড়ে মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির সামনে একটি অবস্থান বিক্ষোভ কর্মসূচি গ্রহণ করেন তাঁরা। এর পরই শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়, নিজের বাড়িতে অতিথি অধ্যাপকদের ডাকেন আলোচনার জন্য। প্রায় ২ ঘন্টা ৪৫ মিনিট শিক্ষামন্ত্রী আলোচনা করেন ১০জন অতিথি অধ্যাপকদের সঙ্গে। ওইদিন আলোচনার পর ১৫ দিন সময় চেয়ে নেন শিক্ষামন্ত্রী এবং অতিথি অধ্যাপকদের আশ্বাস দেন তাদের সমস্ত দাবি খতিয়ে দেখা হবে বলে।

কিন্তু ১৫ দিন পর শিক্ষামন্ত্রীকে ফোন করা হলে তিনি বলেন, অতিথি অধ্যাপকদের বিধানসভায় ডাকা হবে। সে কথারও খেলাপি করেন শিক্ষামন্ত্রী। এরপর বারবার ফোন করা হলে তিনি কোনো রকম কোনো প্রতিক্রিয়া দেখাননি। ফলে শিক্ষামন্ত্রীর আচরণে ক্ষুব্ধ অতিথি অধ্যাপকরা আবারও ১৮ জুলাই হাজরার মোড়ে মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির সামনে অবস্থান বিক্ষোভে নামতে চলেছেন বলে জানিয়েছেন অতিথি অধ্যাপকরা। যদি যথোপযুক্ত ব্যবস্থা না নেওয়া, তবে বিক্ষোভ অনশনে পর্যন্ত গড়াতে পারে বলে জানিয়েছে তাঁরা। এখন দেখার বিষয়, তাদের এই আন্দোলন, অনস্থান বিক্ষোভে আদৌ বরফ গেলে কিনা!

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বর্তমানে রাজ্যে অতিথি অধ্যাপক আছেন প্রায় ১৩ হাজার, ফুল টাইম অধ্যাপক আছেন প্রায় ১২হাজার এবং পার্ট টাইম অধ্যাপক আছেন ৫ হাজার। কলেজে ক্লাস নেওয়া ছাড়াও প্রশ্ন তৈরী, খাতা দেখা, পরীক্ষার ডিউটি দেওয়ার মত কাজগুলি করেন অতিথি অধ্যাপকেরা। কিন্তু তাঁদের মাসিক ভাতা খুবই কম। ক্লাস পিছু ভাতা কোথাও ১০০-১৫০ টাকা, আবার কোথাও খুব বেশি হলে ৫ হাজার টাকা। বর্তমানে একজন ছাত্রদের মাসিক খরচ অতিথি অধ্যাপকদের বেতনের থেকেও বেশি! 

Check Also

পরীক্ষাকেন্দ্রে মোবাইল সহ পাকড়াও এক পার্শ্বশিক্ষক, অভিযোগের সত্যতা নিয়ে প্রশ্ন!

নিউজ ডেস্ক: প্রশ্ন আউট ঠেকাতে ও অবাঞ্চিত ঘটনা রুখতে মোবাইল ফোন নিয়ে পরীক্ষাকেন্দ্রে ঢোকা পুরোপুরি …

প্রশ্ন ফাঁস করলে বা মোবাইল নিয়ে পরীক্ষাকেন্দ্রে ধরা পড়লে আজীবন বহিষ্কার পরীক্ষার্থীকে!

নিউজ ডেস্ক: প্রশ্ন ফাঁস নিয়ে বারে বারে অস্বস্তিতে পড়েছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। আগামী ১২ মার্চ থেকে …

ইসরোতে চাকরির বড় সুযোগ, উচ্চ মাধ্যমিক পাস থাকলেই করা যাবে আবেদন

নিউজ ডেস্ক: বড় শূন্যপদ পূরণ করতে চলেছে ভারতীয় মহাকাশ বিজ্ঞানের পীঠস্থান দ্য ইন্ডিয়ান স্পেস রিসার্চ …

হেলিয়াগাছী অঃপ্রাঃ বিদ্যালয়ে বিদ্যুতের ব্যবহার ও সচেতনা নিয়ে সম্পন্ন হল বিশেষ শিবির

নিউজ ডেস্ক: আজ আমার বিদ্যালয় দঃ ২৪ পরগনার হেলিয়াগাছী অঃপ্রাঃ তে এক বিশেষ শিবির আয়োজন …

ভারতীয় ডাক বিভাগে গ্রামীণ ডাক সেবক (জিডিএস) পদে ২০২১টি শূন্যপদে নিয়োগ

নিউজ ডেস্ক: ভারতীয় ডাক বিভাগের পশ্চিমবঙ্গ ডাক সার্কেলে গ্রামীণ ডাক সেবক-শাখা পোস্ট মাস্টার (বিপিএম), সহকারী …

এসএসকে-এমএসকে শিক্ষাকেন্দ্রগুলি নিয়ে সরকারের বিশেষ কোনও পরিকল্পনা নেই: শিক্ষামন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক: রাজ্যের শিশু ও মাধ্যমিক শিক্ষাকেন্দ্রগুলি (এসএসকে-এমএসকে) নিয়ে সরকারের এই মুহূর্তে বিশেষ কোনও পরিকল্পনা …

বর্ধিত বেতনের বিজ্ঞপ্তিতে অসঙ্গতি, আর্থিক ক্ষতির আশঙ্কায় প্রাথমিক শিক্ষকরা

নিউজ ডেস্ক: গত ১৩ ডিসেম্বর শিক্ষকদের বর্ধিত বেতনের বিজ্ঞপ্তি জারি হয়েছিল। অপশন ফর্ম পূরণ করার …